chattolarkhabor
চট্টলার খবর - খবরের সাথে সারাক্ষণ

চট্টগ্রাম বীচ ম্যানেজমেন্ট কমিটি গঠিত

ksrm

নিজস্ব প্রতিবেদক: পতেঙ্গা ও পারকীসহ জেলার সকল সমুদ্র সৈকত সুষ্ঠু ব্যবস্থাপনা, পর্যটন উন্নয়ন ও সংশ্লিষ্ট কার্যাবলী সমন্বয়ে ‘চট্টগ্রাম বীচ ম্যানেজমেন্ট কমিটি’ গঠন করা করা হয়েছে।  কমিটিতে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসককে সভাপতি ও বাংলাদেশ  পর্যটন  করপোরেশনের ব্যবস্থাপককে সদ্যস সচিব করা হয়েছে।  এর পাশাপাশি পুলিশ সুপারসহ ১৬ জন উচ্চ পর্দস্থ কর্মকর্তাকে সদস্য করা হয়েছে।

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের পর্যটন অধিশাখা-১ এর উপসচিব মো. সফিউল আলম স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে।

কমিটিতে  চট্টগ্রাম পুলিশ সুপার, সিভিল সার্জন, চট্টগ্রাম অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক ( জেলা প্রশাসক কর্তৃক মনোনীত ) নির্বাহী প্রকৌশলী, গণপূর্ত অধিদফতরের নির্বাহী প্রকৌশলী , সড়ক ও জনপথ বিভাগ নির্বাহী প্রকৌশলী , এলজিইডির নির্বাহী প্রকৌশলী, পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী, বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড নির্বাহী প্রকৌশলী জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদফতেরর নির্বাহী প্রকৌশলী, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা, বীচ সংশ্লিষ্ট উপজেলার নির্বাহী কর্মকর্তা, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ও ট্যুরিস্ট পুলিশের প্রতিনিধি, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের নির্বাহী কর্মকর্তা, মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীর মনোনীত দুই জন স্থানীয় বিশিষ্ট ব্যক্তি,  জেলা প্রশাসকের মনোনীত পাঁচজন স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিকে সদস্য করা হয়েছে।

প্রজ্ঞাপনে কমিটির কার্যপরিধি উল্লেখ করে দেওয়া হয়েছে। সেখানে বলা হয়েছে জেলার সকল সমুদ্র সৈকতের  (পতেঙ্গা ও পারকীসহ অন্যান্য বীচ ) নিরাপত্তা ও শৃঙ্খলা বিধান, পর্যটকদের জন্য বিভিন্ন সুবিধার ব্যবস্থাসহ সৈকতের সার্বিক উন্নয়ন , নিয়ন্ত্রণ এবং ব্যবস্থাপনা,  সৈকত ও অন্যান্য পর্যটন এলাকায় উন্নয়নের ব্যবস্থা, কমিটির আওতাধীন কার্যাবলী সম্পাদনের উদ্দেশ্যে স্থানীয়ভাবে তহবিল সৃষ্টি, সৈকত ব্যবস্থাপনা ফি নির্ধারণ ও আদায় এবং স্বেচ্ছাকৃত তহবিল গ্রহণ ও আয়ের অন্যান্য উৎস নির্ণয়, বিদেশী পর্যটকদের জন্য সৈকতে এক্সক্লুসিড জোন নির্ধারণ ও রক্ষণাবেক্ষণ, কমিটি পর্যটন মৌসুমে ( অক্টোবর – মার্চ) মাসে কমপক্ষে একবার ও অন্যান্য সময়ে প্রতি দুই মাসে একবার সভায় মিলিত হবে।

জেলার সকল সমুদ্র সৈকতের উন্নয়ন ও জেলার অন্যান্য এলাকার পর্যটন উন্নয়নের বিষয়ে কমিটি সরকারের নিকট প্রস্তাব পেশ করতে পারবে, কমিটি উৎস হতে লব্ধ আয় দ্বারা সী- বীচ উন্নয়নের ব্যয় নির্বাহ করবে । এ তহবিলের যথাযথ ব্যয় নির্বাহ ও হিসাব সংরক্ষণের জন্য কমিটি দায়ী থাকবে। কমিটি প্রয়োজনে সংখ্যক সদস্য কো -অপ্ট করতে পারবেন ।

এর আগে গতকাল সোমবার (১০ জানুয়ারি) চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের গুলিয়াখালী সমুদ্র সৈকততে সংরক্ষিত এলাকা হিসেবে ঘোষণা করেছিল  বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন মন্ত্রণালয়।

আরকে/নচ

এই বিভাগের আরও খবর
Loading...